মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ০২:৫৪ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম
রিটার্ন জমার সময় বাড়ানো হয়েছে ডিআরইউ’র সভাপতি নোমানী, সম্পাদক মসিউর কোম্পানীগঞ্জে তথ্য প্রযুক্তি আইনে এক ব্যক্তি গ্রেফতা সাতক্ষীরা প্রতিবন্ধী বিদ্যালয় সমূহের এমপিও ভুক্তির দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত নোয়াখালীতে লাইসেন্সবিহীন হাসপাতাল বন্ধ ঘোষণার নির্দেশ, বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড ও জরিমানা এডিপি বাস্তবায়নে ভূমি মন্ত্রণালয়ের অগ্রগতি জাতীয় অগ্রগতির হারের চেয়ে বেশি রানীশংকৈল রামরায় দিঘীতে অতিথি পাখির আগমনে মুখরিত মুন্সীগঞ্জে বাংলাদেশ কালেক্টরেট সহকারী সমিতি পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি ভাস্কর্য অপসারণের নামে দেশকে অস্থিতিশীল করার চক্রান্ত প্রতিহত করুন -তথ্য প্রতিমন্ত্রী বিনামূল্যে ৩ কোটি করোনার টিকা দেওয়া হবে: মন্ত্রিপরিষদ সচিব

করোনার হটস্পটে গার্মেন্টস খোলার সিদ্ধান্ত হঠকারি ও আত্মঘাতি : বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি

প্রেস বিজ্ঞপ্তি : বাংলাদেশের বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক এক বিবৃতিতে বলেন, আজ থেকে গার্মেন্টস কারখানা খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্তে গভীর উদ্বেগ ও উৎকন্ঠা প্রকাশ করেছেন এবং বলেছেন এই পর্যায়ে গার্মেন্টস কারখানা চালু করার তৎপরতা আত্মঘাতি হতে পারে; এই পদক্ষেপ করোনা সংক্রমনের দ্রুত বিস্তার ঘটাতে পারে। করোনার হটস্পট হিসাবে চিহ্নিত নারায়নগঞ্জ, গাজীপুর ও ঢাকায় গার্মেন্টস কারখানা চালু করার পর করোনা সংক্রমন পরিস্থিতির নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাবার আশঙ্কা তৈরী করেছে।
বায়ারদের অর্ডারের কথা বলে মালিকদের চাপে গার্মেন্টস চালু করার উদ্যোগ সরকারের দ্বিমুখী, স্ববিরোধী ও সমন্বয়হীন নীতির বহিঃপ্রকাশ। বিবৃতিতে তিনি বলেন, যেখানে এখনও অনেক ডাক্তার, নার্সসহ চিকিৎসা কমীদেরকেই উপযুক্ত সুরক্ষা নিশ্চিত করা যায়নি, সেখানে গার্মেন্টসে শ্রমিকদের সুরক্ষা নিশ্চিত করা যাবে- এই ধরনের কোন পরিস্থিতি বাংলাদেশে এখনও তৈরী করা যায়নি। গার্মেন্টস কারখানাসমূহের বিদ্যমান কর্মপরিবেশে সামাজিক ও শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে উৎপাদন চালিয়ে যাবার মত অবস্থা এখনও পর্যন্ত নেই।

তদুপরি ৫ মে পর্যন্ত সরকারের সাধারণ ছুটি ঘোষণার মধ্যে গার্মেন্টস খোলার সিদ্ধান্ত হঠকারি ও দায়িত্বহীন। এতে কেবল গার্মেন্টস শ্রমিকেরাই সংক্রমনের বর্ধিত ঝুঁকিতে থাকবেন না, সংক্রমন গোটা সমাজেই আরো ছড়িয়ে পড়ার ক্ষেত্র তৈরী করবে।

বিবৃতিতে তিনি উল্লেখ করেন, করোনা পরিস্থিতিতে সীমিত আকারে আদালত খোলার সিদ্ধান্ত যেখানে স্থগিত করা হয়েছে সেখানে হাজার হাজার শ্রমিককে কিভাবে কোন যুক্তিতে কারখানায় যোগ দিতে বলা হচ্ছে। তিনি বলেন, ইতিমধ্যে বেশ ক’জন গার্মেন্টস শ্রমিক করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন, আক্রান্ত হয়ে আছেন অনেকে। সারাদেশে আজ করোনা সংক্রমনের যে বিস্তৃতি তার এক উল্লেখযোগ্য অংশ ঘটেছে এই শ্রমজীবীদের মাধ্যমে।

তিনি উল্লেখ করেন, ক’দিন আগে প্রধানমন্ত্রীর সাথে ভিডিও কনফারেন্সে গাজীপুরের এসপি-ডিসি পরিস্কারভাবে বলেছেন কিভাবে ৫ এপ্রিল মালিকদের হঠকারি সিদ্ধান্তে গার্মেন্টস খুলে দেওয়ায় করোনা সংক্রমনের দ্রুত বিস্তার ঘটে। বিবৃতিতে বলা হয়, আগামী এক মাস বাংলাদেশে করোনা সংক্রমনের ঝুঁকি সবচেয়ে বেশী। এই অবস্থায় কোনভাবেই শ্রমিকদেরকে মালিকদের মুনাফার বলি হতে দেওয়া যায় না।

বিবৃতিতে তিনি বলেন, মালিকদের লোকসান পুষিয়ে নিতে সরকার যে পাঁচ হাজার কোটি টাকা প্রণোদনা দিয়েছে তা দিয়েও পরিস্থিতি অনেক সামাল দেয়া যাবে।

তিনি গার্মেন্টস শ্রমিকদের দারিদ্র্য ও অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে তাদেরকে বিপদের মধ্যে ঠেলে না দিতে সরকার ও মালিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি